• Home
  • খবর
  • চোলাই ভেবে প্রাসাদের হাড়ি ভেঙ্গে গৃহকর্ত্রীকে মারধর, অভিযুক্তের শাস্তির দাবিতে অবরোধ
খবর পশ্চিম মেদিনীপুর

চোলাই ভেবে প্রাসাদের হাড়ি ভেঙ্গে গৃহকর্ত্রীকে মারধর, অভিযুক্তের শাস্তির দাবিতে অবরোধ

নিজস্ব সংবাদদাতা, পশ্চিম মেদিনীপুর, ৯ নভেম্বর; আদিবাসীদের বাদনা পরব উপলক্ষে প্রসাদ হিসাবে বাড়িতে হেঁড়া নামিয়ে রাখাছিলো বাড়ির মধ্যে। চোলাই মদ রাখা হয় এই সন্দেহে চন্ডী মান্ডী নামের এক মহিলার বাড়িতে ঢুকে হাঁড়িতে রাখা ঠাকুরের প্রসাদ হেঁড়া ভেঙ্গে ফেলা হয় বলে অভিযোগ। এমনকি বাধা দিতে গেলে বাড়ির গৃহকর্তী চন্ডী মান্ডী সহ তার মেয়ে মধূমিতা মান্ডী কেও মারধর করা হয় বলে অভিযোগ।

গতকাল বিকেল নাগাদ ঘটনাটি ঘটে চন্দ্রকোনা থানার শীর্ষা গ্রামে। আহতদুজনকেই স্থানীয় চিকিৎসা কেন্দ্রে চিকিৎসা করানো হয়। গ্রামেরই শীর্ষা সারদা নামক একটি গ্রুপের মহিলাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ। গতকাল ওই গ্রুপের নয়জন মহিলার নেতৃত্বে চোলাই ঠেক ভাঙ্গার নামে এই ধরনের ঘটনা ঘটায়।

এই ঘটনায় গ্রামে উত্তেজনার সৃষ্টি হয়। খবর যায় ভারত জাকাত মাঝি পরগনা সংগঠনের ঘাটাল পরগনায়। খবর চাউর হতেই ওই গ্রামে আজ সকাল থেকে জমায়েত হয় ওই সংগঠনের নেতৃত্ব থেকে প্রচুর সদস্য। ঝাঁকরা থেকে কেচকাপুর গ্রামীন সড়ক অবরোধ হয়। রাস্তা আটকে বসে পড়ে সংগঠনের সদস্যরা। অভিযুক্তদের গ্রেফতারের দাবীতে চলে অবরোধ। চন্দ্রকোনা থানার ওসির নেতৃত্বে গ্রামে পৌঁছয় বিশাল পুলিশ বাহিনী। ঘটনায় এলাকা থমথমে।

গ্রুপের ন’জনের নামে চন্দ্রকোনা থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের হয়েছে। পুলিশের আশ্বাসে পৌনে একটা নাগাদ অবরোধ তুলে নেওয়া হয়। সংগঠনের তরফে পুলিশকে জানানো হয় দ্রুত অভিযুক্তরা ধরা না পড়লে কয়েকদিনের মধ্যে ঝাঁকরা সড়ক অবরুদ্ধ করা হবে। চোলাইয়ের বিরুদ্ধে তারাও কিন্তু পরবের ভোগ হিসাবে হেঁড়িয়া ব্যবহার করা হয় বলা সত্বেও কেন ভাঙ্গচুর এবং মারধর এমনই অভিযোগ ওই পরিবারের ও সংগঠনের নেতৃত্বেরও। এলাকায় নতুন করে কোনও গন্ডগোলের সৃষ্টি না হলেও মোতায়েন করা হয়েছে পুলিশ।

Related posts

তৃণমূল নেতার বাড়িতে বোমাবাজি

Topnewstoday

৭০ টির বেশি হাতি মেদিনীপুর সদরে প্রবেশ

Topnewstoday

বামেদের ডাকা বনধের প্রভাব বর্ধমানে

Topnewstoday

Leave a Comment