কতটা পথ পেরোলে পথিক বলা যায়... কতটা অপচয়ের পর মানুষ চেনা যায়...

Zoom In Zoom Out Read Later Print

এই লোকসভা নির্বাচনে বিভিন্ন সমীক্ষায় তৃণমূলের আসন কমছে বলে পূর্বাভাষ রয়েছে।

নিজস্ব প্রতিবেদন, ৫ এপ্রিল;

উত্তরে গড় কোনদিনই ছিল না তবু বারবার উত্তরের অলিখিত রাজধানী শিলিগুড়ি এবং দার্জিলিং দখল করতে ছুটে এসেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। গোটা রাজ্য দখল করে নিতে পারলেও সাংগঠনিক দুর্বলতা এবং বিরোধীদের সঙ্গে গোপন বোঝাপড়ার ফল হিসেবে শিলিগুড়ি মহকুমা পৌরসভা থেকে পঞ্চায়েত কোনদিনই দখল করা হয়ে ওঠেনি। আরো একটা নির্বাচন ১৮ এপ্রিল লোকসভা নির্বাচনে ভোট দেবেন দার্জিলিং লোকসভা কেন্দ্রের বাসিন্দারা। আরো একবার যুদ্ধ জয়ের আশা নিয়ে শিলিগুড়িতে সভা করবেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। শুক্রবার নকশালবাড়ি ময়দানে প্রধান প্রতিপক্ষ বিজেপিকে টার্গেট করেই জনসভা করতে চলেছেন তৃণমূল সুপ্রিমো। উপস্থিত থাকার কথা রাজ্যের প্রথম সারির আরো অনেক নেতৃত্বের। এই লোকসভা নির্বাচনে বিভিন্ন সমীক্ষায় তৃণমূলের আসন কমছে বলে পূর্বাভাষ করা হয়েছে। ফলে কপালে চাঁদ দেখা দিয়েছে এ রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীর। লোকসভা নির্বাচনে ফল খারাপ হলে তার প্রভাব পরবর্তী বিধানসভা নির্বাচন সহ অন্যান্য নির্বাচনগুলোতেও পড়বে বলে আশঙ্কা। ফলে যেন তেন প্রকারে দার্জিলিং লোকসভা কেন্দ্র থেকে জয় তুলে আনতে মরিয়া মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। যদিও হিসেব বলছে কাজ শুধু কঠিন নয় প্রায় অসম্ভব।

See More

Latest Photos